সিনেমা রিভিউ: আসা যাওয়ার মাঝে (২০১৪)

একটি সবাক চলচ্চিত্রের নির্বাক উপস্থাপনে কোন script ছাড়া, কোন dialogue (কথোপকথন) ছাড়া এমন আবেগের, ভালবাসার, অনুভূতির, তৃপ্তির, কষ্টের এবং মায়ার উপস্থাপন সম্ভব তা আমি এই চলচ্চিত্র না দেখলে হয়তো বুঝতে পারতাম না। ভালোবাসার অনেক রঙ থাকে, রূপ থাকে, চাওয়া থাকে, আকাঙ্ক্ষা থাকে, পাওয়ার তৃপ্তি থাকে, না পাওয়ার বেদনা থাকে, দায়িত্ব থাকে। সেই দায়িত্বের আড়ালে ভালোবাসার পরশ লুকিয়ে থাকে, চোখের অনেক ভাষা থাকে। সে ভাষায় আকুতি থাকে, সে ভাষায় মায়া থাকে, সেই ভাষায় খুব কাছে পেয়েও না পাওয়ার অভিমান থাকে, খুব কাছে আকুল করে ডাকার কিছু আহত আবেদন থাকে। এই ভালবাসাগুলো জীবনের। এই ভালবাসাগুলো উপলব্ধির, এখানে অনুভূতিগুলো হয় ব্যক্তিমানুষের নিজস্ব অভিজ্ঞতার আলোকে, চারপাশের মানুষের চরিত্রে এসব সরাসরি দেখা যায় না, অনুভব করতে হয়। 

কবির সুমনের একটি গানের লাইন ছিল এমন- 

“আমার চোখে রাখো চোখ
কথার অবসান হোক।”

দুজন নারী পুরুষের মধ্যে যদি আত্মার সম্পর্ক খুব বেশি গভীর হয়ে যায়, সেক্ষেত্রে যোগাযোগের জন্য কথা বলাটা বাহুল্যমাত্র। একজনের চোখের তাঁরায় যে কষ্টের, আবেগের, অনুভূতির গল্প প্রকাশ পায়; আরকজন তা বুঝতে পারে। এমনকি চোখে চোখ না রেখেও তা সম্ভব। প্রেমের একটা মোহ থাকে। সেই মোহে প্রেম ছাড়া বাকি সবই মলিন থাকে, সবকিছুই অস্তিত্বে থেকেও থাকে না। একটি অস্তিত্বহীন অবস্থার মাঝে দুজন নর-নারী একটি কাল্পনিক রাজ্যের সম্রাট এবং সম্রাজ্ঞী হয়ে একটি ঘোরলাগা আলো অন্ধকারে একে অপরের সাথে সব সময় বিচরণ করে। এই চলচ্চিত্রটি এমনই একটি চলচ্চিত্র। এখানে প্রেমের ঘোর লাগা দুজন নর-নারীর জীবন থেকে লুকিয়ে নেওয়া কিছু খন্ডচিত্র দেখানো হয়েছে। জীবন যুদ্ধের সমস্ত বাস্তবতা ছাপিয়ে হৃদয়ের মাঝে লুকিয়ে থাকা ভালবাসার ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র প্রাপ্তির মাঝে জীবনের বড় বড় সব বাস্তবতাকে মলিন করে পরিচালক আদিত্যবিক্রম সেনগুপ্ত দুই মানব-মানবীর প্রেমের গভীরতাকে শব্দহীনতার অতলে ডুবিয়ে প্রকাশ করেছেন তার এই চলচ্চিত্রে। 

এখানে “ভালোবাসি” এই কথা কারো মুখ দিয়ে পরিচালক বলাননি, ভালবাসাকে অতিরঞ্জিত করে পরিচালক অমর কিছু হিসেবে প্রকাশও করেননি। কিন্তু ভালবাসা যে কী, তা পরিচালক দর্শকদের অনুধাবন করাতে বাধ্য করিয়েছেন। ভালবাসার যে ভাষা থাকে না, তা পরিচালক বুঝিয়েছেন। ভালবাসার প্রাপ্তি যে একটি অপার্থিব প্রাপ্তি, এখানে পার্থিব প্রাপ্তির হিসেব করাটা ভালবাসার প্রতি অন্যায়, তা পরিচালক খুব ভালো করেই বোঝাতে সক্ষম হয়েছেন বলে আমার মনে হয়। 

আশা করব চলচ্চিত্রটি অনেকেই উপভোগ করবেন। হয়তো অনেকেই করতে পারবেন না। তাঁদের জন্য এটি খুবই বিরক্তিকর একটি চলচ্চিত্র মনে হবে। এখানে মারামারি নেই, thrill নেই, action নেই, drama ও নেই। এখানে যা আছে তা দর্শককে খুঁজে নিতে হবে। 

চলচ্চিত্রের নাম: আসা যাওয়ার মাঝে (Labour of Love)
রিলিজ: ২০১৪
পরিচালক: আদিত্যবিক্রম সেনগুপ্ত।

IMDb রেটিং: ৮/১০
ব্যক্তিগত রেটিং: ৯/১০

একটি গানের লাইন দিয়ে শেষ করবো-

“তোমায় ছুঁতে চাওয়ার মুহূর্তরা
কে জানে কী আবেশে দিশাহারা” 
-যখন নীরবে দূরে (শহর)

কমেন্ট করুন
শিক্ষার্থী | প্রাণরসায়ন ও অনুপ্রাণ বিজ্ঞান বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

সেশন: ২০১৩-১৪

শাহ্‌ পরাণ

সেশন: ২০১৩-১৪